পরীক্ষামূলকভাবে ৫০ যাত্রীকে আমিরাত পাঠানো হবে বুধবার

রাজটাইমস ডেস্ক | প্রকাশিত: ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১৯:১৭; আপডেট: ২২ অক্টোবর ২০২১ ২০:০২

ছবি: সংগৃহীত

পরীক্ষামূলকভাবে ৫০ জন যাত্রীকে বিমানবন্দরে করোনা পরীক্ষা করে বুধবার (২২ সেপ্টেম্বর) পাঠাতে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষকে (বেবিচক) চিঠি দিয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাত। পরিস্থতি সন্তোষজনক হলে বাকিদের নেওয়ার বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাবে আরব আমিরাত। এ জন্য বিমানবন্দরে ডিএমএফআর মলিকুলার ল্যাব অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক মোবাইল ল্যাব স্থাপন করবে। বেবিচক সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।

সূত্র জানায়, বেবিচক চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল এম মফিদুর রহমানকে চিঠি দিয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাত। পরীক্ষামূলকভাবে ৫০ যাত্রীকে বিমানবন্দরে করোনা পরীক্ষা করে আরব আমিরাতে পাঠানো হবে। গত সোমবার সকালেই বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়, প্রাথমিকভাবে একটি প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে বিমানবন্দরে করোনা পরীক্ষা করা হবে। বিমানবন্দরে ডিএমএফআর মলিকুলার ল্যাব অ্যান্ড ডায়াগনস্টিককে মোবাইল ল্যাব রয়েছে, তাই এই প্রতিষ্ঠান কাজ শুরু করবে। পরে আরব আমিরাতের সিদ্ধান্তের পর বাকি প্রতিষ্ঠানগুলো ল্যাব বসানোর সুযোগ পাবে।

১৫ সেপ্টেম্বর সাতটি প্রতিষ্ঠানকে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে করোনা পরীক্ষার আরটি-পিসিআর ল্যাব বসাতে অনুমোদন দেয় প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়। স্টেমজ হেলথ কেয়ার (বিডি) লিমিটেড ঢাকা, সিএসবিএফ হেলথ সেন্টার, এএমজেড হাসপাতাল লিমিটেড, আনোয়ার খান মডার্ন মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল, জয়নুল হক সিকদার ওমেন্স মেডিক্যাল কলেজ অ্যান্ড হসপিটাল, গুলশান ক্লিনিক লিমিটেড ও ডিএমএফআর মলিকুলার ল্যাব অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক—এই সাতটি প্রতিষ্ঠানের নাম প্রস্তাব করেছে স্বাস্থ্য অধিদফতর।

গত বৃহস্পতিবার বেলা ৩টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত বেবিচক প্রধান কার্যালয়ে ৭টি প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিসহ সংশ্লিষ্টদের নিয়ে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বেবিচক চেয়ারম্যানের সভাপতিত্বে এ সভায় ল্যাব স্থাপনের বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। ৭টি প্রতিষ্ঠানের স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিউর (এসওপি) মানসম্মত কিনা তা যাচাই করতে সংযুক্ত আরব আমিরাতে পাঠাতে হবে, তাই শুক্রবার ১২টার মধ্যে এটা জমা দিতে বলা হয়। আরব আমিরাত এসব প্রতিষ্ঠানের আপত্তি না জানালে কাজ দেওয়া হবে। কোনও প্রতিষ্ঠানের এসওপি নিয়ে আপত্তি আসলে তাদের কাজ দেওয়া হবে না। এরমধ্যে জয়নুল হক সিকদার ওমেন্স মেডিক্যাল কলেজ অ্যান্ড হসপিটাল ছাড়া বাকি প্রতিষ্ঠানগুলো তাদের এসওপি জমা দিয়েছিল।

এ বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের পরিচালক (হাসপাতাল) ফরিদ হোসেন বলেন, ‘কারা কাজ করবে না করবে, এখন এটা সিভিল এভিয়েশন দেখছে। অধিদফতর শুধু ল্যাব, করোনা পরীক্ষা কার্যক্রমের মানের বিষয়ে মনিটরিং করবে।’

তবে কোন এয়ারলাইন্স এই ৫০ যাত্রী পরিবহন করবে, কোন যাত্রীদের যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হবে তা এখনও চূড়ান্ত হয়নি। সন্ধ্যায় এসব বিষয়ে উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক ডেকেছে বেবিচক।

এছাড়া, স্বাস্থ্য অধিদফতরের একটি দল ল্যাব স্থাপনের কার্যক্রম তদারকি করতে মঙ্গলবার বিমানবন্দরে আসবে।

আরব আমিরাতের একটি এয়ারলাইন্সের কর্মকর্তা বলেন, ‘পরীক্ষামূলক যাত্রী পরিবহনের বিষয়ে এখনও আমরাদের কিছুই জানানো হয়নি। বেবিচক জানালে আমরা প্রস্তুতি নেবো।’

 

 

 




বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top