ছিন্নমুল ও দুঃস্থদের দুর্ভোগ চরমে

রাজশাহীতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১১ ডিগ্রি

রাজ টাইমস | প্রকাশিত: ২ জানুয়ারী ২০২৪ ১৮:৫১; আপডেট: ২৭ মে ২০২৪ ০৯:২৮

ফাইল ছবি

রাজশাহীতে বেড়েছে শীতের তীব্রতা। সকাল থেকে ঘনকুয়াশায় ঢেকে ছিলো নগরী। পরে দুপুরে সামান্য সময় সূর্যের দেখা মিললেও বিকেল থেকে আবারও ঘনকুয়াশার পড়তে শুরু করে। রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের পর্যবেক্ষক লতিফা হেলেন জানান, মঙ্গলবার সকাল ৬টায় রাজশাহীতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিলো ১১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আগের দিন সোমবার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১২ দশমিক ৬ ডিগ্রি এবং সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ২২ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়। এদিকে নগরীর ছিন্নমুল ও দুস্থ মানুষদের মাঝে এখনও পর্যাপ্ত শীতবস্ত্র পৌছেনি। যার কারণে তীব্রশীতে তাদের দুর্ভোগ চরমে পৌচেছে।

ঘনকুয়াশার সাথে রাজশাহীতে বাড়ছে শীতের তীব্রতা। যারকারণে গতকাল সকাল ৮টা পর্যন্ত হাইওয়ে রাস্তায় চলাচলকরা যানবাহনগুলোকে হেডলাইট ও ফাগ লাইট জ্বালিয়ে চলাচল করতে দেখা গেছে। তাপমাত্রা কমে আসায় তীব্র ঠান্ডার কারণে একান্ত প্রয়োজন ছাড়া নগরীবাসী ঘরের বাইরে বেরহননি। আবহাওয়া অফিস জানায়, গত কয়েকদিন থেকে বিকেলের পরে রাজশাহীতে হিমেল হাওয়া শুরু হচ্ছে। সেই হিমেল হাওয়া গভীর রাত পর্যন্ত বইছে। হিমেল হওয়ার কারণে বেশি শীত অনুভূত হচ্ছে।

গত শনিবার ও শুক্রবারের রাজশাহীর আবহাওয়া তথ্য বিশ্লেষণ করে জানা গেছে, শুক্রবারের তুলনায় শনিবার রাজশাহীতে কমছিল সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা। শুক্রবার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২৭ দশমিক ৮ ডিগ্রি ও সর্বনিম্ন তাপমাত্র ১৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আর শনিবার রাজশাহীতে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২৪ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এদিন সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৫ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সন্ধ্যায় ঘণ্টায় ২ কিলোমিটার বেগে বাতাস বইছে।

রাজশাহী আবহাওয়া পর্যবেক্ষক লতিফা হেলেন বলেন, গত শুক্র ও শনিবারের তথ্য মতে তথ্য মতে রাজশাহীতে সর্বোচ্চ ও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা কমেছে। আজকের তাপমাত্রাও কমতে পারে। শীতের সঙ্গে রাজশাহীতে হিমেল হাওয়া বইছে। তাই বেশি শীত অনুভূত হচ্ছে। এদিকে নগরীর ছিন্নমুল ও দুস্থ মানুষদের মাঝে এখনও পর্যাপ্ত শীতবস্ত্র পৌছেনি। যার কারণে তীব্রশীতে তাদের দুর্ভোগ চরমে পৌচেছে।



বিষয়:


বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস
এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top