একীভূত হচ্ছে না কোনো ইসলামী ব্যাংক

রাজটাইমস ডেস্ক: | প্রকাশিত: ১০ এপ্রিল ২০২৪ ১৬:০৫; আপডেট: ২৬ মে ২০২৪ ১৭:৫৪

ছবি: সংগৃহীত

দেশের দুর্বল ব্যাংকগুলোকে সবল ব্যাংকের সঙ্গে একীভূত করার ধারা শুরু হলেও ইসলামী ধারার ব্যাংকগুলোর বিষয়ে এখনও কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি। বাংলাদেশ ব্যাংক দুর্বল ১০ টি ব্যাংকের যে তালিকা প্রণয়ন করেছে, সেখানে ইসলামি ধারার কয়েকটি ব্যাংকের নাম থাকলেও এখন পর্যন্ত তাদের বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয়নি বলেই জানা গেছে।

জানা গেছে, ইসলামি ধারার যেসব দুর্বল ব্যাংক রয়েছে, সেই সব ব্যাংক মালিকেরা নিজ উদ্যোগেই ব্যাংকগুলোর স্বাস্থ্য ভালো করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

ইতিমধ্যে এক্সিম ব্যাংকের সঙ্গে স্বেচ্ছায় একীভূত হওয়ার লক্ষ্যে চুক্তি করেছে পদ্মা ব্যাংক। ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক বা ইউসিবির সঙ্গে একীভূত হচ্ছে ন্যাশনাল ব্যাংক; সিটি ব্যাংকের সঙ্গে একীভূত হচ্ছে বেসিক ব্যাংক। এছাড়া রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক (রাকাব) কৃষি ব্যাংকের সঙ্গে এবং বাংলাদেশ ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক (বিডিবিএল) সোনালী ব্যাংকের সঙ্গে একীভূত হচ্ছে।

সম্প্রতি বাংলাদেশ ব্যাংকে গভর্নরের সঙ্গে বিভিন্ন ব্যাংকের পরিচালক ও চেয়ারম্যানেরা বৈঠক করেন। বৈঠকে ১০টি দুর্বল ব্যাংককে বিভিন্ন সবল ব্যাংকের সঙ্গে একীভূত করার সিদ্ধান্ত হয়েছে। এই তালিকায় আছে পদ্মা ব্যাংক, এবি ব্যাংক, ন্যাশনাল ব্যাংক, ওয়ান ব্যাংক, বিডিবিএল, বেসিক, ন্যাশনাল ব্যাংক অব পাকিস্তান, রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক, সাউথ বাংলা এগ্রিকালচার ও আইসিবি ইসলামি ব্যাংক।

জানা গেছে, আইসিবি ইসলামি ব্যাংকের একীভূত হওয়ার বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি। আইসিবি ইসলামি ব্যাংকের শেয়ার ওরিয়ন গ্রুপ কিনে নেবে—এমন আলোচনা হচ্ছে বলে বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে। এর আগে আইসিবি ইসলামি ব্যাংকের নাম ছিল দ্য ওরিয়েন্টাল ব্যাংক। সে সময় ব্যাংকটি ওরিয়ন গ্রুপের মালিকানায় ছিল। কিন্তু কেন্দ্রীয় ব্যাংকের হস্তক্ষেপে মালয়েশিয়াভিত্তিক আইসিবি ইসলামি গ্রুপ দেউলিয়াপ্রায় অবস্থায় ব্যাংকটির অধিকাংশ শেয়ার কিনে নেয়। নাম, মালিকানা ও ব্যবস্থাপনায় পরিবর্তন আসলেও আইসিবি ইসলামি ব্যাংক আর ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি।

এর আগে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পক্ষ থেকে চলতি বছরের ডিসেম্বর মাসের মধ্যে সমঝোতার ভিত্তিতে ব্যাংকগুলোকে একীভূত হওয়ার কথা বলা হয়েছে। স্বাভাবিক প্রক্রিয়ায় কেউ একীভূত না হলে আগামী বছর মার্চ থেকে বাধ্যতামূলকভাবে ভালো ব্যাংকের সঙ্গে দুর্বল ব্যাংককে মিলিয়ে দেওয়া হবে।

ইতিমধ্যে স্বেচ্ছায় একীভূত হওয়ার বিষয়ে নীতিমালা জারি করেছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। কীভাবে ব্যাংকগুলো একীভূত হবে, নীতিমালায় সে বিষয়ে বিস্তারিত বলা হয়েছে।



বিষয়:


বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস
এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top