আবারো জয় রাজশাহীর

রাজটাইমস ডেস্ক | প্রকাশিত: ২৬ নভেম্বর ২০২০ ১২:৪৯; আপডেট: ২৬ নভেম্বর ২০২০ ১২:৫৩

দলীয় রান সংগ্রহে রাজশাহীর দুই ক্রিকেটার।

আবারো জয় ছিনিয়ে আনল রাজশাহী। বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে টানা দ্বিতীয় জয় পেয়েছে মিনিস্টার গ্রুপ রাজশাহী। জেমকন খুলনাকে ৬ উইকেটে হারিয়েছে নাজুমল হোসেন শান্তর দল।

অন্যদিকে, প্রথমবারের মত হার মানল খুলনা। এই ম্যাচে নিজেকে মেলে ধরতে পারেনি বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

বৃহস্পতিবার (২৬ নভেম্বর) ব্যাট হাতে নেমে মিরপুর শের ই বাংলা স্টেডিয়ামে ৬ উইকেটে ১৪৬ রান করে খুলনা। জবাবে ব্যাট করতে নেমে নাজমুল হোসেন শান্তর ঝড়ো ফিফটির ওপর ভর করে  ১৬ বল হাতে রেখে সহজ জয় তুলে নেয় রাজশাহী।

শুরুর দিকে হোঁচট খেলেও শেষ পর্যন্ত জয়ী হয়ে মাঠ ছাড়ে রাজশাহী। ১৪৭ রানে টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে ব্যক্তিগত ২ রানে আউট হন ওপেনার আনিসুল ইসলাম ইমন। দ্বিতীয় উইকেটে অধিনায়ক শান্ত ও রনি তালুকদার ৪৭ রান যোগ করে দলকে জয়ের পথে রাখেন। রনি ২৬ রান করে দলীয় ৭২ রানে আউট হন।

নিজের হাফসেঞ্চুরিটা ৩২ বলে তুলে নেন শান্ত। এরপর ৩৪ বলে ৫৫ রান করে এলবিডব্লিউর ফাঁদে পড়েন তিনি। ফজলে মাহমুদ ২৪ রান করে দলীয় ১২০ রানের মাথায় সাজঘরে ফিরে যান। এরপর মোহাম্মদ আশরাফুল ও নুরুল হাসান সোহান দলকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়েন। ১৭.২ বলে ৪ উইকেটে ১৪৭ রান করে রাজশাহী। আশরাফুল ২৫ ও সোহান ১১ রানে অপরাজিত থাকেন।

খুলনার বোলারদের মধ্যে রিশাদ হোসেন ২টি এবং আল আমিন হোসেন ও শহিদুল ইসলাম ১টি করে উইকেট নেন।

টসে জেতা খুলনার সাকিবকে শূণ্য ঘরে ফেরায় রাজশাহী। রাজশাহীর নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ের সামনে খুলনার ব্যাটসম্যানরা বেশি সুবিধা করেত পারেননি। ইমরুল কায়েস ০, সাকিব আল হাসান ১২, এনামুল হক বিজয় ২৬, জহরুল ইসলাম ১ ও অধিয়ানায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ৭ রান করে বিদায় নিলে ৫১ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে খুলনা।

দলের পঞ্চম উইকেট পতনের পর ষষ্ঠ উইকেট জুটিতে আরিফুল হক ও শামিম হোসেন ৪৯ রান যোগ করে সেই চাপ সামাল দেন। ৩৫ রান আউট হন শামিম। এরপর আরিফুলের ৩১ বলে ৪১ রানের কল্যাণে শেষ পর্যন্ত স্কোরবোর্ডে ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৪৬ রান জমা করে জেমকন খুলনা। ৪৬ রানের জুটি গড়ে অবিচ্ছিন্ন থাকেন আরিফুল ও শহিদুল ইসলাম।

রাজশাহী বোলারদের মধ্যে মুকিদুল ইসলাম ২টি উইকেট নেন। এছাড়া এবাদত হোসেন, মেহেদি হাসান ও আরাফাত সানি ১টি করে উইকেট নেন।

 

  • এসএইচ


বিষয়:


বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top